1. imran.vusc@gmail.com : প্রিয়আলো ডেস্ক : প্রিয়আলো ডেস্ক
  2. m.editor.priyoalo@gmail.com : Farhadul Islam : Farhadul Islam
  3. priyoalo@gmail.com : প্রিয়আলো ডেস্ক :
  4. imran.vus@gmail.com : Sabana Akter : Sabana Akter
মিয়ানমার থেকে গুলি আসলে আমরাও পাল্টা গুলি চালাবো: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী - প্রিয় আলো

মিয়ানমার থেকে গুলি আসলে আমরাও পাল্টা গুলি চালাবো: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ২০ জুন, ২০২৪
  • ৩৭
Home Min 1

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, মিয়ানমার আর্মি ও আরাকান আর্মিকে জানিয়ে দেয়া হয়েছে, তারা যাতে বাংলাদেশের পতাকাবাহী জাহাজকে লক্ষ্য করে আর গুলি না চালায়। তা না হলে আমরাও পাল্টা গুলি চালাবো।

আজ বৃহস্পতিবার (২০ জুন) সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নিজ দফতরে এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন, আমরা যতদূর শুনেছি, আরাকান রাজ্যে আরাকান আর্মি অনেক এলাকা দখল করে নিয়েছে। সেজন্য মিয়ানমারের যে বর্ডার গার্ড পুলিশ (বিজিপি) তারা আত্মরক্ষার্থে আমাদের এলাকায় পালিয়ে আসছে। কাজেই সেখানকার অবস্থা কী, সেটা আমরা বলতে পারব না। তবে এটুকু বলতে পারি, তারা মাঝে মাঝে ভুল করে আমাদের বিজিবির দলের ওপর গুলি করেছিল। তাদের সেটা জানিয়েছি। তারা বলেছে, সুনির্দিষ্টভাবে বাংলাদেশের পতাকা যেন উড়িয়ে যায়, তাহলে আর কেউ গুলি করবে না।

মন্ত্রী জানান, টেকনাফ থেকে সেন্টমার্টিন যেতে হলে আমাদের এলাকায় নাফ নদী কিছু নাব্য হারিয়েছে। কাজেই সেখান দিয়ে আমাদের নৌ চলাচল করতে পারে না। মিয়ানমারের অংশ দিয়ে যেতে হয়। যে কারণে এই বিপত্তিটা ঘটেছে।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ডিমএপির সাবেক কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়ার বিরুদ্ধে সঠিকভাবে কোনো অভিযোগ উত্থাপন করা হয়নি। তার নিজের বক্তব্য শোনার পরই বোঝা যাবে, তার সম্পদ অবৈধ কিনা। আগে অভিযুক্তের বক্তব্য শুনতে হবে। যদি সে জবাব দিতে না পারে, তাহলে বোঝা যাবে, সে অবৈধ সম্পত্তির অধিকারী হতে পারে।

এমপি আনার হত্যার তদন্তের বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে আসাদুজ্জামান খান বলেন, এমপি আনার হত্যার বিষয়ে সঠিক তদন্ত চলছে। গোয়েন্দা পুলিশকে (ডিবি) কোনো চাপ দেয়া হচ্ছে না। তিনি যোগ করেন, এমপি আনারের মেয়ে তদন্তের বিষয়ে অনুমান নির্ভর বক্তব্য দিচ্ছে।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি বাংলাদেশের সেন্ট মার্টিন দ্বীপে কয়েকটি নৌযান লক্ষ্য করে মিয়ানমারের দিক থেকে গুলি করা হয়। এতে দ্বীপে বসবাসরত প্রায় ১০ হাজার মানুষ বেশ সংকটে পড়ে। পরিস্থিতি এখন কিছুটা স্বাভাবিক হয়ে এলেও মিয়ানমারের রাখাইনে ব্যাপক সংঘর্ষ অব্যাহত থাকায় টেকনাফ ও সেন্ট মার্টিনের স্থানীয় বাসিন্দারা আতঙ্কে রয়েছেন।

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved priyoalo.com © 2023.
Site Customized By NewsTech.Com
x